ফেসবুকে আসছে অর্থ আয়ের সুযোগ

সামাজিকমাধ্যম ফেসবুকের প্রধান নির্বাহী মার্ক জাকারবার্গ বলেছেন, মেটাভার্স তৈরি হওয়ার পর কন্টেন্ট ক্রিয়েটরদের তাদের কাজের বিনিময়ে অর্থ দেওয়ার দিকে নজর দেবে ফেসবুক। অ্যাপল যে ত্রিশ শতাংশ ফি নেয়, তাতে কাজটি কঠিন করে তুলেছে। কাজেই কন্টেন্ট ক্রিয়েটররা যাতে আরও বেশি আয় করতে পারেন, তা নিশ্চিত করতে আমরা সাবস্ক্রিপশনের হালনাগাদ করছি।

বুধবার (৩ নভেম্বর) ফেসবুকে দেওয়া এক পোস্টে তিনি এমন তথ্য দিয়েছেন। তিনি বলেন, আমরা কন্টেন্ট ক্রিয়েটরদের জন্য তাদের সাবস্ক্রিপশনের একটি প্রচারমূলক লিংক চালু করছি। লোকজন যখন এই লিংক ব্যবহার করে সাবস্ক্রিপশন করবেন, তখন কন্টেন্ট ক্রিয়েটররা কর বাদে নিজেদের আয় করা অর্থ পাবেন।

এই ধনকুবের বলেন, ক্রিয়েটররা তাদের শ্রোতাদের আরও বেশি স্বত্ব পাবেন। তারা যাতে নতুন সাবস্ক্রাইবারদের সবার ইমেল অ্যাড্রেস ডাউনলোড করতে পরেন, তাদের সেই সক্ষমতা দেওয়া হবে।

তিনি বলেন, আমরা একটি বোনাস কর্মসূচি চালু করছি। যাতে প্রতিটি নতুন সাবস্ক্রাইবারের জন্য ক্রিয়েটরদের অর্থ পরিশোধ করা হবে। চলতি গ্রীষ্মে ঘোষিত ১০০ কোটি মার্কিন ডলার ক্রিয়েটর বিনিয়োগের অংশ হিসেবে তাদের অর্থ দেওয়া হবে।

এদিকে চেহারা শনাক্ত করার প্রযুক্তি ফেস রিকগনিশন বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে ফেসবুকের মূল প্রতিষ্ঠান মেটা। এই প্রযুক্তির সাহায্যে ছবি বা ভিডিওতে ব্যবহারকারীকে শনাক্ত করতে পারে ফেসবুক।

ব্যবহারকারীদের শঙ্কা এবং নীতিনির্ধারকদের চাপের মুখে সুবিধাটি বন্ধের ঘোষণা দিল সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম প্ল্যাটফর্মটি। খবরে বলা হয়, ফেস রিকগনিশন প্রযুক্তি এখন অনেকটা নিখুঁতভাবেই চেহারা শনাক্ত করতে পারে। আর সেই সঙ্গে প্রযুক্তিটির সম্ভাব্য অপব্যবহার নিয়ে শঙ্কা রয়েছে।

বিশেষ করে নানা দেশের সরকার, আইন প্রয়োগকারী সংস্থা এবং অন্যান্য প্রতিষ্ঠান নজরদারি বাড়াতে পারে এই প্রযুক্তি ব্যবহার করে। চীনে এই প্রযুক্তির সাহায্যে উইঘুর মুসলিমদের শনাক্ত করে দেশটির সরকার।

সূত্র : সময় নিউজ

0 0 votes
Article Rating
Subscribe
Notify of
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments